আমাদের যদি জিজ্ঞেস করা হয়, শীতে স্কিন কেয়ারের জন্য মাস্ট হ্যাভ আইটেম কোনগুলো? এমন  প্রশ্নের উত্তরে আমাদের সবারই কমন উত্তর হলো- একটি ময়েশ্চারাইজিং ফেইস ক্রিম, একটি বডি লোশন আর একটি লিপবাম। শীতে আমাদের ত্বকের কমন সমস্যা হচ্ছে, স্কিন ড্রাই বা শুষ্ক হয়ে যাওয়া। আমরা সারা বছর স্কিন কেয়ার করি আর না-ই বা করি, শীতে কিন্তু স্কিনকেয়ার জরুরী হয়ে পড়ে। শুষ্ক আবহাওয়ার কারণে এসময় আমাদের ত্বক টানটান হয়ে পড়ে এবং ত্বকের আর্দ্রতা ধরে রাখার জন্য প্রয়োজন পড়ে ময়েশ্চারাইজারের। শীতে ত্বকের সম্পূর্ণ যত্ন নিতে ফেইস ক্রিম, বডি লোশন আর লিপবাম যে শুধু মেয়েরাই ব্যবহার করি, তা কিন্তু নয়! পরিবারের সবারই তখন ত্বকের যত্নের প্রয়োজন পড়ে।

শীত শুরু হওয়ার সাথে সাথেই আমরা খুঁজতে থাকি এমন প্রোডাক্ট, যা দিয়েই করা যায় পুরো শীতের স্কিনকেয়ার। ভালো মানের প্রোডাক্ট খোঁজার পাশাপাশি আমরা চাই প্রোডাক্টগুলো যেন বাজেট-ফ্রেন্ডলিও হয়। তাই আজকে আপনাদের জানাবো, কীভাবে মাত্র ৯৯৯ টাকারও কমে করতে পারবেন পুরো শীতের কেনাকাটা।

ফেইস ক্রিম

ছোটবেলা থেকে স্কিনকেয়ার টার্মের সাথে আমাদের পরিচয় না থাকলেও বাসায় শীতের দিনে ফেইস ক্রিম হিসেবে কিছু না কিছু তো অবশ্যই দেখেছেন। যদি বলা হয় কোনটা দেখেছেন? তবে অনেকের উত্তরই হবে গাঁড় নীল কৌটায় সাদা লেখার সেই ফেইস ক্রিমটি।  বুঝে ফেলছেন নিশ্চয়ই কোন ক্রিমের কথা বলছি? বলছিলাম, Nivea ফেইস ক্রিমের কথা।

E0A6A4E0A78DE0A6ACE0A695E0A787E0A6B0 E0A6B8E0A6AEE0A78DE0A6AAE0A782E0A6B0E0A78DE0A6A3 E0A6AFE0A6A4E0A78DE0A6A8

যুগ যুগ ধরে ফেইস ক্রিম হিসেবে এটির ব্যবহার হয়ে আসছে। শীতে এই ক্রিমটি খুবই ভালো একটি ময়েশ্চারাইজার হিসেবে কাজ করে। শীতকালে গোসলের পরপর ত্বক খুব টানটান হয়ে পড়ে। এসময় যদি আমরা ফেইস ক্রিম দিয়ে স্কিনের ময়েশ্চারাইজারকে লক করে দেই তাহলে ত্বকের আর্দ্রতা বজায় থাকে। নিভিয়ার এই ক্রিমটি  ডার্মাটোলজিক্যালি টেস্টেড, তাই যেকোনো বয়সে এই ফেইস ক্রিমটি পরিবারের ছেলে-মেয়ে নির্বিশেষে সবাই ব্যবহার করতে পারবেন।

এই ফেইস ক্রিমটির রেগুলার প্রাইস ৩০০ টাকা। কিন্তু সাজগোজ এ উইন্টার সেলে পেয়ে যাবেন মাত্র ১৯৯ টাকায়।এইতো গেল ফেইস ক্রিম। এবার আশা যাক, বডি লোশনে।

বডি লোশন

শীতে মুখের ত্বকের মতই শরীরের অন্যান্য অংশও শুষ্ক হয়ে পড়ে। অনেক সময়ই দেখা যায়, হাত কিংবা পা এ কেমন সাদা সাদা হয়ে উষ্কখুষ্ক হয়ে আছে। অনেকের আবার এ সময় ত্বকে চামড়া ওঠা শুরু করে। এসব সমস্যার সমাধান হতে পারে ভালো একটি বডি লোশন।

বাজেট ফ্রেন্ডলি এমনই একটি ময়েশ্চারাইজার হলো- রাজকন্যা ব্রাইটেনিং বডি লোশন। এতে আছে আলফা আরবুটিন, ভিটামিন-ই এবং বেদানার নির্যাস। আলফা আরবুটিন দাগ এবং পিগমেন্টেশন কমাতে দারুণ কার্যকরী। এছাড়া ত্বকের সান বার্ন বা রোদে পোড়া ভাব দূর করতে কাজ করে এই উপাদানটি। এতে থাকা ভিটামিন-ই ত্বককে করে সফট, হেলদি এবং ময়েশ্চারাইজড। আর এই বডি লোশনটিতে থাকা বেদানার নির্যাস ত্বকের অ্যান্টি এজিং এ কাজ করে আর ত্বককে সূর্যের ক্ষতিকর আলট্রা ভায়োলেট রশ্মি থেকে ত্বককে সুরক্ষা দেয় এবং প্রাকৃতিক ভাবে ত্বককে করে উজ্জ্বল। এ বডি লোশনটি খুবই লাইট ওয়েট। এবং সকল ধরনের ত্বকের জন্য উপযোগী। আর লাইট ওয়েট হওয়ায় ত্বকে খুব সুন্দর করে এবসরভ হয়ে যায় এবং চিটচিটে ভাবটা থাকেনা।

shopping with shajgoj 2

আর ফেইসের তুলনায় বডির জন্য একটু বেশি পরিমাণে ময়েশ্চারাইজার দরকার। কেননা মুখের ত্বকের চেয়ে আমাদের বডি বেশি ড্রাই হয়ে পড়ে। আর রাজকন্যা ব্রাইটেনিং বডি লোশনটির দাম অনুযায়ী পরিমাণ বেশ ভালো, এর নেট ওয়েট ৩৮০ মিলিগ্রাম। যা আপনি অনায়াসেই ১/২ মাস ব্যবহার করতে পারবেন। আর এর দাম মাত্র ৫২০ টাকা, যা পরিমাণ ও কার্যকারিতা অনুযায়ী খুবই  রিজেনেবল।

এইতো গেল বডি লোশনের পালা। এখন বলা যাক, ঠোঁটের যত্নে লিপবাম নিয়ে।

লিপবাম

শীতের উইন্টার অ্যাসেনসিয়ালের একটি হলো লিপবাম। শীতের শুরু থেকেই আমাদের ঠোঁট ফাটা, ঠোঁটের চামড়া  ওঠা সহ নানান সমস্যা দেখা দেয়। তাই রাতে ঘুমাতে যাবার আগে কিংবা সকালে মুখ ধোবার পর লিপবাম ছাড়া যেন আমাদের চলেই না! লিপবাম আমাদের ঠোঁটের ড্রাইনেস দূর করে ঠোঁটকে দেয় কোমলতা। ঠোঁট ফাটা, ঠোঁটের কালো দাগ এবং পিগমেন্টেশন সহ বিভিন্ন সমস্যা দূর করতে কার্যকরী একটি সমাধান হচ্ছে লিপবাম। আর শীতে লিপস্টিক ব্যবহারের আগে লিপবাম ব্যবহার করা জরুরী। ম্যাট কিংবা লিকুইড লিপস্টিক ব্যবহারের আগে লিপবাম ব্যবহার না করলে কিছুক্ষণ পরেই কেমন গুড়িগুড়ি হয়ে পড়তে থাকে। আর সেই সাথে ঠোঁট হয়ে যায় ড্রাই। তাই শীত হোক কিংবা গ্রীষ্ম লিপস্টিক ব্যবহারের আগে ঠোঁটের সুরক্ষায় অবশ্যই লিপবাম ব্যবহার করতে হবে।

shopping with shajgoj 3

লিপবামের ক্ষেত্রে আপনি বেছে নিতে পারেন- লাইলাক প্রিমিয়াম লিপবাম। লাইলাক প্রিমিয়াম লিপবাম আপনি ৪টি ফ্লেভারে পাবেন- কোকোয়া, গোলাপ, স্ট্রবেরি এবং রজনীগন্ধা। এই লিপবামগুলোর প্যাকেজিং খুবই সুন্দর। রিফ্রেশিং ফ্লেভারের এই লিপবামগুলো শীতে আপনার ঠোঁটকে ফেটে যাওয়া, ড্রাই কিংবা ক্র্যাকড হওয়া থেকে বাঁচাবে। আর এতে আছে এসপিএফ ১৫, যা ঠোঁটকে দিবে সান প্রটেকশান।

সাজগোজ এ উইন্টার বাই ওয়ান গেট ওয়ান অফারে একসাথে দুই ফ্লেভারের দুটো লিপবাম পেয়ে যাবেন মাত্র ২৭৫ টাকায়! সারা বছর জুড়ে ব্যবহার করতে পারবেন রিফ্রেশিং স্মেলের এই লিপবামগুলো।

ব্যাস! হয়ে গেল পুরো শীতের কেনাকাটা! এখন হিসেব করছেন তো? ফেইস ক্রিম, বডি লোশন আর লিপবাম- এ সব কিছু কিনে মোট হলো ৯৯৪ টাকা! অর্থাৎ আপনি আপনার উইন্টার এসেনশিয়ালস পেয়ে গেলেন ৯৯৯ টাকারও কমে! যারা বাজেটের মধ্যে পুরো শীতের স্কিনকেয়ার প্রোডাক্টস খুঁজছিলেন তাদের জন্য এর চেয়ে ভালো ডিল আর হতেই পারেনা।  আশা করছি, আর্টিকেলটি আপনাদের জন্য হেল্পফুল ছিল।

The post এই শীতে ত্বকের সম্পূর্ণ যত্ন হবে ৯৯৯ টাকারও কমে!! appeared first on Shajgoj.